অবিলম্বে সৌদি যুবরাজের শাস্তি চান খাশোগির বাগদত্তা

0
73

অনলাইন ডেস্কঃ সৌদি আরবের রাজপরিবারের কঠোর সমালোচক সাংবাদিক জামাল খাশোগির বাগদত্তা খাদিজা চেঙ্গিস অনতিবিলম্বে যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমানের শাস্তি দাবি করেছেন।

সম্প্রতি প্রকাশিত মার্কিন গোয়েন্দা রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়, সৌদি যুবরাজের নির্দেশে ২০১৮ সালের অক্টোবরে তুরস্কের ইস্তানবুলের সৌদি কনস্যুলেটে জামাল খাশোগিকে হত্যা করা হয়।

২০১৮ সালেই এই প্রতিবেদন তৈরি করা হলেও সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এটি গোপন রাখার নির্দেশ দিয়েছিলেন।

এক টুইটবার্তায় চেঙ্গিস লিখেছেন, যদি সৌদি যুবরাজকে শাস্তি দেওয়া না হয়, তা হলে এর মধ্য দিয়ে চিরদিনের জন্য এমন একটি বার্তা দেওয়া হবে যে, খুনের মূল অপরাধী ধরাছোঁয়ার বাইরে থাকতে পারেন। এতে আমরা সবাই বিপদে পড়ব। এতে আমাদের মানবতায় রক্তের দাগ লাগবে।

২০১৮ সালের অক্টোবরে তুরস্কের ইস্তানবুলের সৌদি কনস্যুলেটে খুন করার পর জামাল খাশোগির মরদেহ টুকরো টুকরো করে ফেলা হয়। তিনি সৌদি যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমানের কট্টর সমালোচক ছিলেন।

শুরু থেকেই হত্যার নির্দেশদাতা হিসেবে মোহাম্মদ বিন সালমানকে সন্দেহ করা হচ্ছে। সৌদি আরব প্রথমে এই হত্যার সঙ্গে জড়িত থাকার কথা অস্বীকার করলেও পরে আন্তর্জাতি চাপের মুখে তা স্বীকার করে।

৫৯ বছর বয়সী এই সাংবাদিক একসময় সৌদি সরকারের উপদেষ্টা ছিলেন। ২০১৭ সালে যুক্তরাষ্ট্রে আত্মনির্বাসনে গিয়েও শেষ পর্যন্ত বাঁচতে পারেননি ওয়াশিংটন পোস্টের কলাম লেখক এই সাংবাদিক।

 

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে