নিম্নকক্ষে সংখ্যাগরিষ্ঠ ডেমোক্র্যাট, উচ্চকক্ষে এগিয়ে রিপাবলিকান

0
58

মার্কিন কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ হাউস অব রিপ্রেজেনটেটিভসে (প্রতিনিধি পরিষদ) ২১৮টি আসন পেয়ে নিজেদের সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিশ্চিত করেছে ডেমোক্রেটিক পার্টি। এখনও সব আসনের ফলাফল আসেনি। স্থানীয় সময় মঙ্গলবার প্রতিনিধি পরিষদে নতুন তিনজনকে বিজয়ী ঘোষণার মধ্য দিয়ে ডেমোক্র্যাটদের সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জিত হয়। তারা হলেন- ওয়াশিংটনের বর্তমান প্রতিনিধি পরিষদ সদস্য কিম স্ক্রিয়ার, অ্যারিজোনার টম ও’হ্যালেরান ও ক্যালিফোর্নিয়ার জিমি গোমেজ।

এর আগে নির্বাচনের দিন ৩ নভেম্বর প্রতিনিধি পরিষদে ডেমোক্র্যাটরা ২৩২টি, রিপাবলিকান ১৯৭টি ও স্বতন্ত্র ১টি এবং উন্মুক্ত ৫টি আসন হবে বলে পূর্বাভাস দেয়া হয়েছিল। অন্যদিকে সিনেটে আরেকটি আসন পেয়ে রিপাবলিকানদের সিনেট সদস্য সংখ্যা এখন ৪৯ জনে দাঁড়িয়েছে। ডেমোক্র্যাটদের আসন ৪৮টি। ১০০ সদস্যের সিনেটে ৫১টি আসন দরকার সংখ্যাগরিষ্ঠতার জন্য। যদি দু’পক্ষই সমান হয়, তবে ডেমোক্র্যাটদের জন্য ভাইস প্রেসিডেন্টের টাইব্রেকার ভোট থাকছে। রয়টার্স, এএফপি।

ডেমোক্র্যাটদের সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিশ্চিত হওয়ার মধ্য দিয়ে টানা দ্বিতীয় মেয়াদে হাউসে সংখ্যাগরিষ্ঠতা ধরে রাখল ডেমোক্রেটিক পার্টি। ১৯৯৫ সালের পর এই প্রথম এই সুযোগ এলো তাদের হাতে। ভোটের আগে বিভিন্ন জনমত জরিপে ভবিষ্যদ্বাণী করা হয়েছিল যে, এবার প্রেসিডেন্ট, হাউস ও সিনেট- তিনটিতেই জয়ী হয়ে বিরল ক্ষমতার সুযোগ লাভ করবে ডেমোক্র্যাটরা। প্রেসিডেন্ট ও প্রতিনিধি পরিষদে বিজয়ের পূর্বাভাস কাজ করলেও সিনেটের ক্ষেত্রে রিপাবলিকানরা নিজেদের অগ্রগতি ধরে রেখেছে। আরও তিনটি সিনেট আসনে ভোট ও ফলাফল বাকি রয়েছে। এর মধ্যে জর্জিয়ার দুটি আসনে ৫ নভেম্বর পুনর্নির্বাচন হবে। আলস্কার একটি আসনের ফলাফল এখনও চূড়ান্ত হয়নি। তবে রিপাবলিকান প্রার্থী ড্যান সুভিলান সেখানে এগিয়ে রয়েছেন।

সিনেটে যদি টাই হয়, তাহলে ডেমোক্র্যাট প্রেসিডেন্ট-ইলেক্ট জো বাইডেনকে বড় বড় প্রতিশ্রুতি পূরণের ক্ষেত্রে সমস্যায় ফেলতে পারবেন রিপাবলিকানরা। স্বাস্থ্যসেবায় অগ্রাধিকার ভিত্তিতে ব্যয় বাড়ানো ও স্বাস্থ্যসেবাকে আরও বিস্তৃত করা, জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলার লড়াই এবং করোনাভাইরাসের কারণে আরও সহায়তার মতো বিল আটকে দিতে চেষ্টা করবে রিপাবলিকানরা।

এমনকি বাইডেন প্রশাসনের, বিশেষত কেবিনেট সদস্য ও অন্যান্য জরুরি পদে নিয়োগকেও বাধার মুখে ফেলতে পারবে তারা। কারণ এসব ক্ষেত্রে সিনেটের অনুমোদনের প্রয়োজন হয়।

এতদিন সিনেটে ৪৭-৫৩ আসনে সংখ্যাগরিষ্ঠতা ছিল রিপাবলিকানদের। ৩ নভেম্বর নির্বাচনের দিন পর্যন্ত দুই দল ৪৮-৪৮ আসনে টাই ছিল। ধারণা করা হয়েছিল প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জয়ের পাশাপাশি সিনেটেও সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করতে পারবে ডেমোক্রেটিক পার্টি। কিন্তু নর্থ ক্যারোলিনায় হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের পর ডেমোক্রেটিক প্রার্থী ক্যাল কানিংহাম পরাজয় স্বীকার করে নিলে রিপাবলিকান প্রার্থী থম টিলিসকে পুনর্নির্বাচিত ঘোষণা করা হয়। ক্যানিংহাম বিবৃতি দিয়ে জানিয়েছেন যে, ফোন করে টিলিসকে তিনি অভিনন্দন জানিয়েছেন। যদিও ৩ নভেম্বর নির্বাচনের পূর্ণাঙ্গ ফল এখনও আসেনি। তিনি বলেন, ভোটাররা তাদের রায় দিয়েছেন এবং আমি একে সম্মান করি।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে