পশ্চিমবঙ্গে বসবাসকারী সব বাংলাদেশিই ভারতীয় নাগরিক : মমতা

0
100

দিল্লিতে সিএএ-বিরোধীর ওপর উগ্রহিন্দুত্ববাদীদের হামলাকে পরিকল্পিত গণহত্যা আখ্যা দিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দিল্লিতে ঘরহারা মানুষদের পশ্চিমবঙ্গে আশ্রয় দেয়া হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

এবার তিনি জানালেন, ‘পশ্চিমবঙ্গে বসবাসরত সব বাংলাদেশিই ভারতের নাগরিক। বাংলাদেশ থেকে যারা এসেছেন এবং নির্বাচনে ভোট দিয়েছেন; নাগরিকত্বের জন্য নতুন করে তাদের আবেদন করার দরকার নেই।’

মঙ্গলবার কলকাতায় এক সমাবেশে অংশ নিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এ কথা বলেন বলে জানিয়েছে ভারতের সরকারি সংবাদ সংস্থা পিটিআই।

সমাবেশে দিল্লিতে ঘটে যাওয়া সংখ্যালঘুদের ওপর চলা হত্যাযজ্ঞ থামাতে ক্ষমতাসীন বিজেপি সরকার ব্যর্থ বলে মন্তব্য করেছেন মমতা।

মোদি সরকারের তীব্র সমালোচনা করে মমতা বলেন, ’দিল্লি রক্তে রঞ্জিত। ভুলে যাবেন না যে, এটা পশ্চিমবঙ্গ। দিল্লিতে যা ঘটেছে, তা কখনই এখানে ঘটবে না। আমরা পশ্চিমবঙ্গকে আরেকটি দিল্লি কিংবা উত্তরপ্রদেশ হতে দেব না।’

এরপর তিনি বলেন, ’একজন মানুষকেও পশ্চিমবঙ্গ থেকে তাড়াতে দেব না আমি। এই রাজ্যে বসবাসরত একজন শরণার্থীও নাগরিকত্বের তালিকা থেকে বাদ পড়বেন না বলে আশ্বস্ত করছি।’

এ সময় মমতা বলেন, ‘যারা বাংলাদেশ থেকে এদেশে এসে এখানকার নাগরিকত্ব পেয়েছেন। ভোট দিয়ে প্রধানমন্ত্রী এবং মুখ্যমন্ত্রী নির্বাচিত করেছেন। তারা আবার নাগরিক নন কি করে?’

বিজেপি সরকারের উদ্দেশ্য করে মমতা বলেন, ‘এসব নাগরিকদের ভোট পেয়ে প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন, ক্ষমতায় গেছেন। এখন আবার বলছেন এরা ভারতের নাগরিক নন। এসব কথা বিশ্বাস করতে হবে?।’

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে